অবশেষে সফলভাবে সমাপ্ত হল এসডি এশিয়া কর্তৃক আয়োজিত ৩ দিন ব্যাপি  স্টার্টআপ উইকেন্ড ঢাকা এর আসর।গত ১৮ থেকে  ২০শে মে, ঢাকা এবং ঢাকার বাইরের উদ্যোক্তারা বসুন্ধরার জিপি হাউজে একত্রিত হন তাদের মতামত/ধারণা নিয়ে কাজ করার জন্য ।

৩ দিন ধরে ভেন্যুতে ১০০ জনের মতো নতুন উদ্যোক্তারা তাদের ধারণা, সমাধান, খোলা এবং অনির্বাচিত মার্কেট চিহ্নিত করে এবং মূল উদ্ভাবনের বিষয়গুলি নিয়ে আলোচনা করে যা বাংলাদেশের স্টার্টআপ নতুনত্ব এবং উদ্যোক্তা ভবিষ্যতের সম্ভাবনাকে বাস্তবায়ন করতে সহায়তা করবে।

যদি আপনি স্টার্টআপ উইকেন্ডের ধারণার সাথে পরিচিত না হন – এটি একটি উৎসাহী উদোক্তাদের বিশ্বব্যাপি নেটওয়ার্ক (www.startupweekend.org) যার উদ্দেশ্য একই ছাদের নিচে সকল স্মার্ট উদোক্তাদের একত্রিত করে তাদের ধারণাগুলোর মধ্যে থেকে সেরা স্টার্টআপকে বাস্তবায়নে/তহবিল সংগ্রহে সহায়তা করা।

অনুষ্ঠানটি  শুরু করেন ভারত থেকে আগত নিখিল জ্যান যিনি ইভেন্টের বিষয়সূচি নিয়ে আলোচনা করেন। এই স্টার্টআপ উইকএন্ড ইভেন্টটি জীবনের অভিজ্ঞতা, নন-টেকনিক্যাল এবং টেকনিক্যাল উদ্যোক্তাদের জন্য বাস্তবিক শিক্ষার চেয়ে বড়, বিশেষ করে কর্ম, উদ্ভাবন এবং অনুপ্রেরণার ওপর নিবদ্ধ। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে দশটায় রেজিস্ট্রেশন শুরু হওয়ার পর থেকেই ৩ দিন ধরে বেশ ইতিবাচক বিষয়বস্তু নিয়ে আলোচনা করা হয়। স্টার্টআপ উইকেন্ডের অংশগ্রহকারীদের মধ্যে ৪0% এরও বেশি ব্যবসা ব্যাকগ্রাউন্দের, ৪0% প্রযুক্তিগত ব্যাকগ্রাউন্ডের  এবং বাকি 20% একটি ডিজাইন / সৃজনশীল ব্যাকগ্রাউন্ডের ছিলেন।

_MG_0077

বৃহস্পতিবার সকালে ৯৪টি আইডিয়া পিচ করা হয় এবং অংশগ্রহণকারীদের ভোটের মাধ্যমে সেরা আইডিয়া বেছে নিতে বলা হয়। ১৬টি সেরা স্টার্টআপ আইডিয়া শর্টলিস্ট কর হয় এবং দল গঠন করে দেয়া হয় যেখানে তারা তাদের ব্যবসায়িক মডেল প্রণয়ন করে এবং ডেমো উপস্থাপন করে এবং শনিবার সন্ধ্যায় বিচারক প্যানেলের জন্য পিচ তৈরি করে।দলগুলো সন্ধ্যা পর্‍্যন্ত কাজ করে এবং পরের দিন সকালে আবার কর্মে ফিরে আসে।

অংশগ্রহণকারীদের এই অবিশ্বাস্য শক্তি ও উৎসাহ দেখে বলা যায় বাংলাদেশের স্টার্টআপ কমিউনিটি ধীরে ধীরে আরো শক্তিশালী হচ্ছে।

স্টার্টআপ উইকেন্ড ঢাকা এর আয়োজকদের একজন নাহিদ ফারজানা বলেন, “স্টার্টআপ উইকেন্ড ঢাকা  অংশগ্রহণকারীরা, পরামর্শদাতা এবং স্বেচ্ছাসেবকরা এই সপ্তাহান্তে অংশ নেওয়ায় আমাদের এই আয়োজন সফল হয়েছে। আমাদের বেশ কয়েকজন অংশগ্রহণকারী ছিল যারা বরিশাল, চট্টগ্রাম, সিলেট ও ​​মুন্সীগঞ্জের মতো জায়গা থেকে অংশগ্রহন করেছেন। এতে আমাদের স্বপ্ন সত্যি হয়েছে।অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে ১৫ বছর বয়সী তরুণ ও কিছু প্রবাসী বাংলাদেশীও ছিলেন ”

নিখিল জ্যান বলেন, “আমি স্টার্টআপ উইকেন্ড ঢাকায় আসতে পেরে এবং আয়োজকদের সহযোগিতা করতে পেরে বেশ আনন্দিত।বৃহস্পতিবার থেকে ভেন্যু ছিল অনেক মেধাবী মানুষদের আনাগোনায় ভরপুর। এখানে উপস্থিত উদ্যোক্তা, ডিজাইনার, প্রযুক্তিবিদ, দলগুলোদের মধ্যে সামনে এগিয়ে যাওয়ার অনুপ্রেরণা দেখা যাচ্ছে এবং তারা সম্মিলিত ভাবে  আমাদের সম্মোহিত করার মত কিছু আইডিয়া বানাবে যেগুলো গতকালের আইডিয়া গুলোকে আরও অসাধারণ করে তুলবে।”

_MG_0053

স্টার্টআপ উইকেন্ড ঢাকা এর সকল অংশগ্রহণকারীর জন্য শুক্রবার একটি বড় দিন ছিল যখন অংশগ্রহণকারীরা তাদের ধারণা এবং গ্রাহক যাচাইয়ের জন্য বেরিয়ে আসেন, যে বুদ্ধিমান, ব্যবসা পরিকল্পনা উন্নয়ন এবং মৌলিক প্রোটোটাইপ নির্মাণের মাধ্যমে অব্যাহত থাকে। দলগুলি সম্ভাব্য গ্রাহকদের সাথে যোগাযোগ করে এবং প্রকল্পটির সামঞ্জস্যতা যাচাই করে তাদের ধারণাগুলি যাচাই করে। সব দলগুলি শিল্প নেতাদের কাছ থেকে পরামর্শ এবং কোচিং পেয়েছে এবং স্থানীয় স্টার্টআপ উদ্যোক্তাদের কাছ থেকে মূল্যবান প্রতিক্রিয়া লাভ করেছে। পরামর্শদাতা এবং কোচরা তাদের সকলকে সাহায্য করে মিশন-সমালোচনামূলক সমস্যাগুলি সমাধান করতে এবং দ্রুত পরিবর্তনগুলি গ্রহণ করে তাদের প্রগাঢ় ধারণাগুলিকে সুসজ্জিত ব্যবসা মডেলগুলির মধ্যে উন্নত করতে।

অবশেষে স্টার্টআপ উইকেন্ড ঢাকা শনিবার রাতে ডেমো এবং উপস্থাপনায় পরিণতি লাভ করে। অংশগ্রহণকারীরা তাদের দৈনিক নেটওয়ার্কগুলির বাইরে উদ্যোক্তা মানসিকতার বাকিদের সহযোগিতা করে, কাজ শুরু করে এবং বিচারকদের তাদের প্রোটোটাইপ প্রদর্শন করে। বিচারক প্যানেলে ছিলেন ইনফ্লেকশন ভেঞ্চারের তানভীর আলী, বিডি ভেঞ্চারের সাখাওয়াত হোসেন, গ্রামীণফোনের ফারহানা ইসলাম এবং রেজর ক্যাপিটালের আহাদ ভাই।

_MG_2195 (2)

শীর্ষ দলগুলো হছে লিগ্যাল সেবা, কার্ভেটাইইজ এবং গারবেজম্যান। শীর্ষ দলগুলো ফেসবুক থেকে পুরষ্কার পেয়েছে এবং সকলেই পেয়েছে সনদপত্র। শুধুমাত্র শীর্ষ দলগুলোই নয়,বাকি অংশগ্রহণকারীরাও তাদের স্টার্টআপ আইডিয়া নিয়ে অবিরত কাজ করতে ইচ্ছুক।

হোয়াইটবোর্ড ছিল এই ইভেন্টের ইনোভেশন এনাব্লার।প্লাটিনাম পার্টনার হিসেবে ছিল ফেসবুক এবং সিলভার স্পন্সর হিসেবে ছিল ম্যাগনিটো ডিজিটাল, ত্রিপলি, রেজর ক্যাপিটাল এবং ইংলিশ এসেন্স।

_MG_2200 (2)

SD Asia Desk